taslima nasrin
ছবি: চ্যানেল অনলাইন

সম্প্রতি চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে প্রথম দেশ হিসেবে পা ফেলেছে ভারত। এই ঐতিহাসিক ঘটনাকে কেন্দ্র করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে চলছে নানান আলোচনা। এবার এই বিষয়ে মুখ খুললেন লেখিকা তসলিমা নাসরিন।

গতকাল (২৩ আগস্ট) বুধবার ভারতের চন্দ্রযান-৩ চাঁদের মাটিতে অবতরণ করার পর সন্ধ্যায় একটি ফেসবুক পোস্টের মাধ্যমে ভারতে নির্বাসনে থাকা বাংলাদেশের লেখিকা তসলিমা নাসরিন তার প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। পোস্টে তিনি একসময় বৃহত্তর ভারতের অংশ থাকা দুটি দেশ বাংলাদেশ এবং পাকিস্তানের সুদূর ভবিষ্যতেও চাঁদে অবতরণ করার বিষয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেন।

Bkash July

ফেসবুক পোস্টে তসলিমা নাসরিন বলেন, ভারত এখন চাঁদে। চন্দ্রযান-৩ আলতো ভাবে চাঁদের মাটিতে পা রাখলো এই মাত্র। অভিনন্দন ভারত। অনেকে বলবে, এত দারিদ্র, এত লোক খেতে পায় না, এত লোকের বাড়িতে টয়লেট নেই, কী দরকার চাঁদে গিয়ে, এত টাকা খরচ করে? আমি বলবো, বিজ্ঞানের অগ্রগতির দরকার সব সময়। একই সঙ্গে দারিদ্রও দূর করা দরকার, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, সচেতনতাও বাড়ানো দরকার। একটির উন্নতি করতে গেলে আরেকটির উন্নতি স্থগিত রাখতে হয় না।

Capture

Reneta June

এরপর বাংলাদেশ এবং পাকিস্তানের প্রসঙ্গ টেনে তিনি আরও বলেন, ভারতের এককালের অংশ বাংলাদেশ এবং পাকিস্তানের কি আগামী ১০০ বছরে চাঁদে পা রাখা সম্ভব? না। তারা ধর্মে ডুবে আছে, বিজ্ঞানকে দূরে সরিয়ে। কোরআনই নাকি তাদের বিজ্ঞান। যতদিন কোরআন তাদের বিজ্ঞান শেখাবে, ততদিন তাদের দৌড় মসজিদ পর্যন্ত, চাঁদ বা মঙ্গলগ্রহ পর্যন্ত নয়।

I Screen Ami k Tumi

সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।