PANCHAGAR  samakal faea
ছবি: সমকাল

করতোয়ায় নৌকাডুবিতে স্বজনহারা মানুষ আজও ভিড় করেন নদী তীরে। সকাল থেকে রাত পর্যন্ত বিলাপ করেন কেউ কেউ। নৌকাডুবির তৃতীয় দিনে এসে একে একে উদ্ধার হয় আরও ১৮ মরদেহ। তাদের স্বজনের কান্নায় ভারী হয়ে ওঠে পরিবেশ। আর যারা আজও স্বজনের খোঁজ পাননি তাদের দৃষ্টিতে ছিল শূন্যতা, বুকে দহন। 

নৌকাডুবির ঘটনায় গঠিত তদন্ত কমিটির প্রধান পঞ্চগড় জেলার অতিরিক্ত ম্যাজিস্ট্রেট দীপঙ্কর রায়। তিনি জানান, আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যা পর্যন্ত ৬৮ জনের মরদেহ উদ্ধার হয়েছে। দুর্ঘটনার পর থেকে সোমবার রাত পর্যন্ত ৫০ জনের মরদেহ উদ্ধার হয়। এখনো ৪ জন নিখোঁজ রয়েছেন। 

গত রোববার পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলার করতোয়া নদীতে নৌকাডুবির ঘটনাটি ঘটে। এতে কেউ হারিয়েছেন পুত্র-কন্যা, কেউ বাবা-মা, ভাই-বোন। একসঙ্গে এতো মানুষের মৃত্যু আগে দেখেনি এই এলাকার মানুষ। 

পঞ্চগড় ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের সহকারী উপপরিচালক শেখ মো. মাহাবুবুল আলম সমকালকে জানান, আজ সকাল থেকে পঞ্চগড় ও আশপাশের জেলার আটটি ফায়ার সার্ভিস ইউনিট উদ্ধারকাজ করে। এর বাইরে রংপুর, কুড়িগ্রাম এবং রাজশাহী থেকে তিনটি ডুবুড়ি দলে মোট ৯ জন উদ্ধারকাজে অংশ নেন। সন্ধ্যা পর্যন্ত ৬৮ জনের মরদেহ উদ্ধার হয়েছে। যে চারজন এখনও নিখোঁজ রয়েছেন তাদের সন্ধান চলছে।

রোববার দুপুরে মহালয়া উদযাপন করতে নৌকায় শতাধিক সনাতন ধর্মাবলম্বী মাড়েয়া এলাকা থেকে বদ্বেশ্বরী মন্দিরে যাচ্ছিলেন। যাত্রী নিয়ে আওলিয়া ঘাটে করতোয়ায় ডুবে যায় নৌকাটি। 


সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।