EID  dbaecefcdbcfeeaace
ছবি: বাংলা ট্রিবিউন

আজ ঈদ। রাত পোহালেই উদযাপনের উৎসব। দুনিয়াব্যাপী অর্থনৈতিক সংকটের মধ্যেই পালন করা হবে মুসলমানদের সবচেয়ে বড় দুটি উৎসবের একটি। এই ঈদ কোরবানির। মুসলিমরা তাদের স্রষ্টার সন্তুষ্টি অর্জনের লক্ষ্যে পশু কোরবানি দিয়ে থাকেন। যথাযোগ্য ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে সারা দেশে আজ সোমবার (১৭ জুন) পবিত্র ঈদুল আজহা পালিত হচ্ছে।

বরাবরের মতো এ বছরও ঈদের সময় স্বজনদের সঙ্গে কাটাতে রাজধানী ছেড়েছেন অসংখ্য মানুষ। শুক্রবার (১৪ জুন) থেকে শুরু হওয়া ঈদের ছুটি শেষ হবে আগামী মঙ্গলবার (১৮ জুন)।

ধর্মগ্রন্থ কোরআনে সুরা কাওসারের দুই নম্বর আয়াতে বলা হয়েছে, ‘তোমার প্রতিপালকের উদ্দেশে সালাত আদায় করো ও পশু কোরবানি দাও।’ জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম কবিতায় বলেন, ‘মনের পশুরে কর জবাই, পশুরাও বাঁচে বাঁচে সবাই।’

মহান আল্লাহর প্রতি গভীর আনুগত্য ও সর্বোচ্চ ত্যাগের মহিমায় ভাস্বর পবিত্র ঈদুল আজহা উল্লেখ করে বাণী দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন। পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে দেশবাসী ও বিশ্বের সব মুসলিম ভাই-বোনদের তিনি শুভেচ্ছা জানান। বাণী দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বিরোধীদলীয় নেতা জিএম কাদের।

এছাড়া বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান, মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দেশের প্রায় বেশিরভাগ রাজনৈতিক দল দেশবাসীর প্রতি ঈদের শুভেচ্ছা জানান।

প্রতি বছরের মতো এবারও বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজের ৫টি জামাত অনুষ্ঠিত হবে। প্রথম জামাত সকাল ৭টায়, দ্বিতীয় জামাত ৮টায়, তৃতীয়টি ৯টায়, চতুর্থটি সকাল ১০টায় এবং পঞ্চম ও সর্বশেষ জামাত সকাল ১০টা ৪৫ মিনিটে অনুষ্ঠিত হবে।

ইসলামিক ফাউন্ডেশন জানায়, প্রথম জামাতে ইমামতি করবেন বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা এহসানুল হক, দ্বিতীয় জামাতে মাওলানা মুহীউদ্দিন কাসেম, তৃতীয় জামাতে ড. মাওলানা আবু সালেহ পাটোয়ারী,  চতুর্থ জামাতে জামেয়া আরাবিয়া মিরপুরের মুহতামিম মাওলানা সৈয়দ ওয়াহিদুজ্জামান, পঞ্চম ও সর্বশেষ জামাতে ইমামতি করবেন ফাউন্ডেশনের মুফতি মাওলানা মোহাম্মদ আবদুল্লাহ। এই ৫টি জামাতে কোনও ইমাম উপস্থিত না থাকলে বিকল্প ইমাম হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন হাইকোর্ট মাজার মসজিদের ইমাম হাফেজ মো. আশরাফুল ইসলাম।

ঢাকা উত্তর সিটি ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশনও ঈদের জামাতের আয়োজন করেছে। ডিএসসিসির জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. আবু নাছের বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হবে সকাল সাড়ে ৭টায়। ইতোমধ্যে ঈদ জামাত আয়োজনের সব প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন প্রধান ঈদ জামাতে অংশ নেবেন।

তিনি জানান, বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের খতিব মাওলানা মুফতি রুহুল আমিন মূল ইমাম, বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা মুফতি মিজানুর রহমান বিকল্প ইমাম, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের দীনি দাওয়াত ও সংস্কৃতি বিভাগের পরিচালক মো. আনিছুর রহমান সরকার মূল উপস্থাপক, বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের মুয়াজ্জিন কারি মো. ইসহাক মূল কারি হিসেবে প্রধান ঈদ জামাতে দায়িত্ব পালন করবেন।

ডিএনসিসি থেকে জানানো হয়েছে, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের উদ্যোগে প্রতিটি ওয়ার্ডে ৫টি করে ঈদের জামাত আয়োজন করা হয়েছে। কাউন্সিলরদের তত্ত্বাবধানে ৫৪টি ওয়ার্ডে মোট ২৭০টি ঈদের জামাত আয়োজন করা হচ্ছে ডিএনসিসির উদ্যোগে। এবারই প্রথমবারের মতো মিরপুর গোলারটেক মাঠে ডিএনসিসির ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

জাতীয় সংসদের দক্ষিণ প্লাজা টানেলের নিচে সকাল সাড়ে ৭টায় ঈদুল আজহার জামাতের আয়োজন করা হয়েছে। মন্ত্রিপরিষদ সদস্য, জাতীয় সংসদের হুইপ, সংসদ সদস্য ও সংসদ সচিবালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ এলাকার মুসল্লিরা এই জামাতে অংশ নেবেন।

ঈদ মানে আনন্দ আর খুশি। এই আনন্দের মাত্রায় আরও নতুনত্ব যোগ করে বিনোদন আর ঘোরাঘুরি। সারা দেশের মতো রাজধানী ঢাকার বিভিন্ন ভবন সেজেছে রঙিন আলোয়। ঈদুল আজহার আনন্দ বাড়িয়ে দিতে সারা দেশের সিনেমা হলে মুক্তি পেতে পারে অন্তত পাঁচটি সিনেমা। ঈদের দিন সকাল সাড়ে ৯টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত বিভিন্ন শো’তে এসব সিনেমা প্রদর্শিত হবে।

ঈদুল আজহাকে কেন্দ্র করে রাজধানীতে নেওয়া হয়েছে বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীও তৎপর রয়েছে।


সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।